রোববার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪

|

চৈত্র ৩০ ১৪৩০

Advertisement
Narayanganj Post :: নারায়ণগঞ্জ পোস্ট

রূপগঞ্জে পিকনিকের দুতলা বাস দুর্ঘটনায় শিশু নিহত, আহত ২২

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

প্রকাশিত: ১৮:২৪, ২ মার্চ ২০২৪

আপডেট: ১৮:৩৯, ২ মার্চ ২০২৪

রূপগঞ্জে পিকনিকের দুতলা বাস দুর্ঘটনায় শিশু নিহত, আহত ২২

বাসের ধাক্কা

নারায়ণগঞ্জ তিতাস গ্যাস অফিসের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের পিকনিকের একটি দু'তলা বাস পূর্বাচলের কাঞ্চন-কুড়িল বিশ্বরোড সড়কের (শেখ হাসিনা সরণির) একটি আন্ডারপাসের ছাদের ধাক্কায় এক শিশু নিহত ও অন্তত ২২ জন আহত হয়েছেন। এরমধ্যে চারজনের অবস্থা আশংকাজনক বলে জানা গেছে। 

শনিবার (০২ মার্চ) সকাল ১০টার দিকে পূর্বাচল ফায়ার সার্ভিস কার্যালয়ের সামনের সার্ভিস সড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পূর্বাচল ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ঘটনাস্থলে গিয়ে বাসে থাকা যাত্রীদের উদ্ধার করেন। 

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দীপঙ্কর চন্দ্র সাহা বলেন, এখন পর্যন্ত একজন শিশু নিহত হয়েছে।  বাকি অন্তত ২২ জন আহত হয়েছে বলে জানতে পেরেছি। 

তিতাস গ্যাস এন্ড ট্রান্সমিশনের নারায়ণগঞ্জ এর ডিজিএম প্রকৌশলী মামুন আর রশীদ বলেন, ‘পিকনিক বাস দুর্ঘটনায় আমাদের এক সহকর্মীর সন্তান মারা গেছে। তার নাম আখিল (১২)। সে তার মা নিলুফার সঙ্গে পিকনিকে যাচ্ছিলো। নিলুফাও গুরতর আহত হয়েছেন। তার একটি পা কাটা গেছে।’ 

তিতাস গ্যাস এন্ড ট্রান্সমিশনের নারায়ণগঞ্জ শাখার সিবিএ সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আয়েজউদ্দিন আহমেদ বলেন, প্রতি বছরের ন্যায় শনিবার আমাদের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বার্ষিক পিকনিক ছিলো। সকালে নারায়ণগঞ্জের চাষাঢ়া থেকে তিতাসের নারায়ণগঞ্জ ডিভিশনের কর্মকর্তা, কর্মচারী ও তাদের পরিবারের মোট ৫শ’ লোক নিয়ে রূপগঞ্জের সী-সেল পার্কের উদ্দেশ্যে রওয়া হই। একটি বাস সড়কের আন্ডার পাসের ছাদে ধাক্কা লেগে দুর্ঘটনার শিকার হয়। এতে বেশ কয়েকজন আহত হয়েছে।

আহতরা হলেন- তিতাস কর্মকর্তা রবিন লাল, শাকিল, শাভা, মিনহাজ, শরিফুল, নিলুফা, মনোয়ারা, রেহেনা, শুভ্রত, তানজিম, নজরুল ইসলাম, সুমাইয়া, শিরিন আক্তার, সর্ণা রানী, তানিয়া, জেরিন, শাহনাজ, আফরিনসহ অন্তত ২০ জন। 

আহতদের প্রথমে রাজধানীর কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়। পরে অবস্থার অবনতি হওয়ায় সেখান থেকে ১০ জনকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ এবং নিলুফা ও তার ছেলে আখিলকে পঙ্গু হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। পঙ্গু হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আখিল মারা যায়।