শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪

|

আষাঢ় ৭ ১৪৩১

Advertisement
Narayanganj Post :: নারায়ণগঞ্জ পোস্ট

বিএনপিতে আর না, জোট হতে পারে : তৈমূর

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

প্রকাশিত: ২২:১৮, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২৩

বিএনপিতে আর না, জোট হতে পারে : তৈমূর

ফাইল ছবি

বিএনপির বহিষ্কৃত নেতা অ্যাডভোকেট তৈমূর আলম খন্দকার বলেছেন, একটা চাপ্টার ক্লোজ হলে সেটা ওপেন হতে পারে না। বিএনপির সাথে জোট হতে পারে। বঙ্গবন্ধু কন্যা জাসদের সাথে জোট করেছে। সেখানে জোট হতে পারে। তবে একটা দল আমাকে বহিষ্কারের পর গোনায় ধরল না। সেখানে ফিরে যাওয়ার কোন প্রয়োজন আছে বলে মনে হয় না। সময়ের রাজনীতির ওপর নির্ভর করবে তৃণমূল বিএনপি কোন পথে যাবে। তৃণমূল বিএনপি কোন ব্যাক্তিগত দল হবে না, এটা ব্যাক্তির সিদ্ধান্তে চলবে না।

সোমবার (১৮ সেপ্টেম্বর) তৃণমূল বিএনপিতে যোগদানের বিষয়ে জানতে চাইলে একথা জানান তিনি।

তিনি বলেন, আমি দল ছাড়িনি। বিএনপি আমাকে বহিষ্কার করেছে। অন্যান্যরা প্রাক্তন দল সম্পর্কে যেমন সমালোচনা করে আমি সেটা করবো না। তবে আমাকে যে অভিযোগে বহিষ্কার করেছে এটা সঠিক না। ২০১১ সালে জমি বিক্রি করে নির্বাচন করেছি। তারপরেও দলের সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়ে বসে গেছি। তবে দুঃখ হল আমি জানার আগে নৌকার প্রার্থী জানে আমাকে বসিয়ে দেয়া হবে বা বহিষ্কার করা হবে।

আমাকে জনগণের চাপে নির্বাচন করতে প্রস্তাব পেয়েও রাজি হইনি। যখন মহাসচিব ফখরুল ইসলাম আলমগীর বললেন স্থানীয় নির্বাচন স্বতন্ত্র ভাবে করা যাবে। তখনও আমাকে কেউ বলেনি নির্বাচন না করতে। যেদিন মনোনয়ন জমা দেই সেদিন হাজারও নেতাকর্মী নিয়ে গেছি। আমাকে একটা ফোনও করেনি। আগে তো নির্দেশ দিতে হবে তারপর আসবে সিদ্ধান্ত অমান্য করার প্রসঙ্গ।

গত দেড় বছর ধরে আমি বহিষ্কৃত হয়েও দলের পতাকা বহন করছি। ঢাকার প্রতিটি কর্মসূচিতে আমি হাজারও লোক নিয়ে গেছি। তারপরেও দল আমার প্রয়োজন মনে করে না। দলের এখন সুসময়। আশা করি এ সুসময় আরও থাকবে। যখন নারায়ণগঞ্জে ব্যানার ধরার লোক ছিল না৷ এ নারায়ণগঞ্জে অফিস ছিল না। জিয়াউর রহমানের ম্যুরালে কালি লাগিয়েছিল সে কালি ডিসিকে দিয়ে পরিষ্কার করিয়েছি৷ মিছিলে গুলিবিদ্ধ হয়েছি। 

তিনি বলেন, সরকারের বিরুদ্ধে কথা বললে আওয়ামী লীগের নেতারা বলে আপনি তো বিএনপির হয়ে কথা বলতে পারেন না। আপনি তো বহিস্কৃত। আমার তো একটা প্লাটফর্ম দরকার। আমার কারও প্রতি ক্ষোভ নেই।